একটানা প্রায় ৩৬ ঘণ্টা ধরে ঘেরাও বিশ্বভারতীর উপাচার্য, জারি ছাত্র আন্দোলন

0

একটানা প্রায় ৩৬ ঘণ্টা ধরে ঘেরাও বিশ্বভারতীর উপাচার্য। নিজের বাসভবনেই ঘেরাও হয়ে রয়েছেন তিনি। তিন পড়ুয়াকে তিন বছরের জন্য বহিষ্কারের সিদ্ধান্তের প্রতিবাদে শুক্রবার রাত থেকে ঘেরাও উপাচার্য। বহিষ্কারের সিদ্ধান্ত বদল করা না হলে আন্দোলন চলবে বলেই দাবি পড়ুয়াদের। এদিকে, রবিবার বিশ্বভারতী চত্বরে মিছিল করতে চলেছে আন্দোলনরত পড়ুয়াদের একাংশ।

একটানা প্রায় ৩৬ ঘণ্টা ধরে ঘেরাও বিশ্বভারতীর উপাচার্য, জারি ছাত্র আন্দোলন

Read more-ফের আগামী দুদিনের মধ্যে হামলা হতে পারে কাবুল বিমানবন্দরে, হুঁশিয়ারি বাইডেনের

বিশ্বভারতীর প্রায় ১২ জন অধ্যাপক-অধ্যাপিকাকে ইতিমধ্যেই সাসপেন্ড করা হয়েছে। এছাড়াও অর্থনীতি এবং সংগীত বিভাগের মোট ৩জন পড়ুয়াকে ৬ মাসের জন্য সাসপেন্ড করা হয়েছিল। পরবর্তীতে সাসপেনশন বর্ধিত করা হয়। তারা সাসপেন্ড থাকাকালীন তিন পড়ুয়াকে ৩ বছরের জন্য বহিষ্কার করা হয়। বিশ্বভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ে এই সিদ্ধান্তের প্রতিবাদে সরব পড়ুয়ারা।

Read More-কলকাতাসহ দক্ষিণবঙ্গের জেলাগুলিতে বজ্রবিদ্যুত্‍-সহ ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস, উত্তরবঙ্গে অব্যাহত বৃষ্টি

তারই প্রতিবাদে শুক্রবার রাত সাড়ে আটটা নাগাদ কেন্দ্রীয় কার্যালয় ঘেরাও করেন পড়ুয়ারা। সেখানে নিরাপত্তারক্ষীদের সঙ্গে একপ্রস্থ তর্কাতর্কিতেও জড়িয়ে পড়ে পড়ুয়ারা। পরে উপাচার্যের বাসভবন ‘পূর্বিতা’ ঘেরাও করে তারা। আন্দোলনরত পড়ুয়াদের হাতে ছিল প্ল্যাকার্ড। তাতে লেখা, ‘তালিবান উপাচার্য দূর হটো’। শুক্র এবং শনিবার রাতভর ঘেরাও উপাচার্য। রবিবার সকালেও জারি আন্দোলন। উপাচার্য বহিষ্কারের সিদ্ধান্ত বদল না করলে আন্দোলন জারি থাকবে বলেই দাবি আন্দোলনকারীদের। এদিন দুপুরে বিশ্বভারতী চত্বরে মিছিল করার কথা পড়ুয়াদের।

Read more-প্রথম ভারতীয় প্যাডলার হিসাবে টোকিওয় রুপো জয় ভাবিনাবেন প্যাটেলের

এদিকে, অশান্তির আশঙ্কায় আঁটসাঁট নিরাপত্তায় মুড়েছে উপাচার্যের বাসভবন। ‘পূর্বিতা’র আশেপাশে লাগানো হয়েছে সিসিটিভি। আগে ৯টি সিসিটিভি লাগানো হয়েছিল। শনিবার আরও ৯টি লাগানো হয়েছে। বিশ্বভারতীতে ছাত্র আন্দোলনের ঘটনায় লেগেছে রাজনীতির রং। বিজেপির দাবি, তৃণমূলের অঙ্গুলিহেলনেই বিশ্বভারতীতে অশান্তি চলছে। যদিও তৃণমূল সেই অভিযোগ অস্বীকার করেছে।

Read more-১ সেপ্টেম্বর থেকে বদলাচ্ছে চেকের মাধ্যমে লেনদেনের নিয়ম, লাগু নয়া নির্দেশিকা

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here