এবার নতুন করে মহারাষ্ট্রের লাতুর জেলায় ২৭ ও ২৮ ফেব্রুয়ারি জনতা কারফিউ ঘোষণা

0

দেশজুড়ে চলছে করোনার টিকাকরণ অভিযান। দেশের অন্য রাজ্যগুলিতে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে এলেও মহারাষ্ট্রের করোনা পরিস্থিতি নতুন করে উদ্বেগ বাড়াচ্ছে স্বাস্থ্যমন্ত্রকের। কেন্দ্রের তরফে সংক্রমণ মোকাবিলা নিয়ে রাজ্য প্রশাসনের সঙ্গে নিয়মিত আলোচনা চলছে। করোনা রুখতে প্রয়োজনে আরও কড়া বিধি-নিষেধ আরোপের বার্তা দেওয়া হয়েছে মাহারাষ্ট্র সরকারকে।

বিষয়টি নিয়ে যথেষ্ট উদ্বিগ্ন উদ্ধব ঠাকরের সরকার। মহারাষ্ট্রজুড়ে সংক্রমণ বেড়েই চলেছে। পরিস্থিতি মোকাবিলায় ইতিমধ্যেই রাজ্যের বেশ কিছু এলাকায় লকডাউন জারি করেছে রাজ্য সরকার। এবার নতুন করে লাতুর জেলায় ২৭ ও ২৮ ফেব্রুয়ারি জনতা কারফিউ ঘোষণা করা হয়েছে।

দেশে করোনার সংক্রমণ উদ্বেজনক হওয়া শুরু করতেই জনতা কারফিউ ঘোষণা করেছিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। এরপরই দেশজুড়ে শুরু হয়ে যায় লকডাউন। এক বছর ধরে করোনার করাল গ্রাসে গোটা বিশ্ব। ভাইরাসের ভয়ঙ্কর প্রভাব এরাজ্যেও। মহারাষ্ট্রেই করোনার সবচেয়ে বেশি সংক্রমণ ছড়িয়েছিল শুরু থেকে। নিউ নর্মাল পরিস্থিতিতে ধীরে ধীরে সংক্রমণ কমতে থাকে সেরাজ্যে। তবে সম্প্রতি ফের মহারাষ্ট্রে ছড়াচ্ছে সংক্রমণ। যা নিয়ে ঘোর উদ্বেগে উদ্ধব ঠাকরের সরকার। পরিস্থিতি মোকাবিলায় দফায়-দফায় বৈঠক রাজ্য প্রশাসনের কর্তাদের। ইতিমধ্যেই মারাঠাভূমের বেশ কয়েকটি এলাকায় করোনা রুখতে লকডাউন জারি করা হয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here