দেশে করোনা সংক্রমণ দ্রুত গতিতে ছড়িয়ে পড়ছে, উচ্চপর্যায়ের বৈঠকে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি

0

ফের একবার বহু মানুষ আক্রান্ত হচ্ছে করোনায়। লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে আক্রান্তের সংখ্যা। মহারাষ্ট্রের (Maharashtra) মতো কিছু কিছু রাজ্যে পরিস্থিতি হাতের বাইরে চলে যাচ্ছে। তাই একাধিক সতর্কবার্তা নিতে শুরু করেছেন প্রশাসনিক আধিকারিকরা।

এই অবস্থায় কী করণীয়, তা ঠিক করতে এক উচ্চপর্যায়ের বৈঠক ডেকেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি । যাতে উপস্থিত রয়েছেন সব শীর্ষকর্তারা। রয়েছেন ক্যাবিনেট সচিব, মুখ্যসচিব, স্বাস্থ্য সচিব । এমনই সূত্রের খবর। মূলত করোনা সংক্রমণ রোখা ও টিকাকরণের প্রক্রিয়ায় আরও জোর দেওয়া, এই বৈঠকে আলোচনার বিষয়। এর আগে, গত বছর দেখা গিয়েছিল যে, করোনা নিয়ন্ত্রণ করতে দফায় দফায় রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে বৈঠক করেন দেশের প্রধানমন্ত্রী। আপাতত সচিব পর্যায়ের বৈঠকে তিনি সম্ভবত বুঝে নেওয়ার চেষ্টা করবেন যে কোথায় কী পরিস্থিতি এবং তা মোকাবিলায় কতটা তৈরি দেশ।

সূত্রের খবর, এই বৈঠকে বেশ কিছু গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত নেওয়া হতে পারে। ইতিমধ্যেই মহারাষ্ট্রে জিম, মাল্টিপ্লেক্স, শপিং মল বন্ধের কথা চলছে। কোনও কোনও জায়গায় মিনি লকডাউনের পথে হেঁটেছে স্থানীয় প্রশাসন।

টানা ২৫ দিন ধরে ক্রমাগত দেশে বৃদ্ধি পাচ্ছে করোনায় আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা। এই মুহূর্তে দেশে অ্যাকটিভ রোগীর সংখ্যা ৬,৯১,৫৯৭ জন। মোট আক্রান্তের প্রায় ৫.৫৪ শতাংশ। সুস্থতার হারও কমেছে ৯৩.১৪ শতাংশ। দৈনিক সংক্রমণের মতো করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ে ভারতে প্রাণহানিও ঘটেই চলেছে। তবে শনিবারের তুলনায় গত ২৪ ঘণ্টায় কিছুটা হাঁফ ছেড়ে বাঁচা গিয়েছে। কারণ শনিবার দৈনিক মৃত্যু যেখানে ৭১৪ ছিল, গত ২৪ ঘণ্টায় তা ৫১৩-য় নেমে এসেছে। সবমিলিয়ে করোনার প্রকোপে এখনও পর্যন্ত দেশে ১ লক্ষ ৬৪ হাজার ৬২৩ জন রোগী প্রাণ হারিয়েছেন। ভারতে এই মুহূর্তে মৃত্যুর হার ১.৩২ শতাংশ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here