বসিরহাটে তৃণমূল নেতাকে লক্ষ্য করে এলোপাথাড়ি গুলি দুষ্কৃতীদের, আশঙ্কাজনক অবস্থায় ভর্তি হাসপাতালে

0

বসিরহাটে তৃণমূল নেতাকে লক্ষ্য করে এলোপাথাড়ি গুলি চালানোর অভিযোগ উঠল দুষ্কৃতীদের বিরুদ্ধে। গুলিবিদ্ধ অবস্থায় হাসপাতালে ভর্তি তিনি। অবস্থা আশঙ্কাজনক। এই ঘটনায় উত্তেজনা ছড়িয়েছে এলাকায়। সেখানে মোতায়েন রয়েছে বিশাল পুলিশ বাহিনী। ঘটনাটি ঘটেছে বসিরহাট মহকুমার ন্যাজাট থানার দু’নম্বর বয়ারমারী গ্রাম পঞ্চায়েতের তালতলা গ্রামে। জানা গিয়েছে, এদিন সকাল ৯টা নাগাদ গ্রামের তৃণমূল নেতা সুন্নত আলি মোল্লা নিজের ঘেরে মাছ ধরতে গিয়েছিলেন। সেই সময় তাঁর উপর হামলা চালায় দুষ্কৃতীরা। স্থানীয়দের অভিযোগ, ৬-৭ জন দুষ্কৃতীদের একটি দল সুন্নতকে লক্ষ্য করে এলোপাথাড়ি গুলি চালাতে থাকে। পালানোর চেষ্টা করেন বছর ৪০-এর ওই তৃণমূল নেতা। কিন্তু তাঁর দুই পায়ে বেশ কয়েকটি গুলি লাগে। গুলির আওয়াজ শুনে আশপাশের লোকেরা সেখানে ছুটে এলে দুষ্কৃতীরা সেখান থেকে পালিয়ে যায় বলে খবর। নেতার পরিবারের অভিযোগ, শুধু পায়ে নয়, মাথাতেও গুলি করা হয়েছে তাঁর। স্থানীয়রা সুন্নতকে সঙ্গে সঙ্গে উদ্ধার করে প্রথম বসিরহাট মহকুমা হাসপাতালে নিয়ে গেলে সেখান থেকে তাঁকে কলকাতায় রেফার করা হয়। বর্তমানে আশঙ্কাজনক অবস্থায় কলকাতার একটি বেসরকারি হাসপাতালে চিকিত্‍সাধীন ওই নেতা। এভাবে প্রকাশ্য দিবালোকে গুলি চালানোর ঘটনায় উত্তেজনা ছড়িয়েছে এলাকায়। ঘটনাস্থলে আসে ন্যাজাট ও মিনাখাঁ থানার পুলিশ। তাদের সামনে সুন্নতের পরিবার অভিযোগ করেছে হাবিবুর রহমান ওরফে বাচ্চা খোকন নামের এক দুষ্কৃতী ও তার দলবল পরিকল্পনা করে এই হামলা চালিয়েছে। লিখিত অভিযোগও দায়ের করেছে তারা। এই হামলার পিছনে রাজনৈতিক শত্রুতা রয়েছে, নাকি মাছের ঘের দখল করার জন্য হামলা, নাকি ব্যক্তিগত কোনও শত্রুতা রয়েছে তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ। এই ঘটনায় এলাকায় বিশাল উত্তেজনা ছড়িয়েছে। তাই পরিস্থিতি মোকাবিলায় মোতায়েন রয়েছে বিশাল পুলিশ বাহিনী।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here