রাজনীতি ছাড়লেন বহিষ্কৃত এআইএডিএমকে নেত্রী শশিকলা

0

রাজনীতি থেকে অবসর নিলেন অপসারিত এআইএডিএমকে নেত্রী ভিকে শশীকলা। একদা প্রয়াত জয়ললিতার ছায়াসঙ্গী শশীকলা জানিয়েছেন যে তিনি রাজনীতিতে থাকবেন না। তবে এআইএডিএমকের ক্যাডারদের তিনি আসন্ন ভোটে দলকে জয়যুক্ত করার আহ্বান জানিয়েছেন। অন্যদিকে প্রধান বিরোধী দল ডিএমকে ও তাদের ছোটো শরিক কংগ্রেসের মধ্যে আসন সমঝোতা নিয়ে সমস্যা তৈরি হয়েছে। সব মিলিয়ে সরগরম তামিলনাড়ুর ভোট বাজার।

এদিন আচমকাই শশীকলা ক্যাডারদের বার্তা দিয়ে বলেন যে যারা প্রয়াত জয়ললিতার সত্যিকারের সমর্থক তাদের একযোগে কাজ করতে হবে যাতে প্রয়াত মুখ্যমন্ত্রীর সোনার রাজ অব্যাহত থাকে। বিভেদ ভুলে সবাইকে কাজ করতে বলেন তিনি। প্রসঙ্গত দুর্নীতির মামলায় জেলে ছিলেন শশীকলা। জেল থেকে বেরিয়ে সক্রিয় রাজনীতিতে আসার ইচ্ছা প্রকাশ করেন তিনি। তাঁর জন্য যে এআইএডিএমকে-র দরজা বন্ধ সেটা স্পষ্ট করে দিয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী পালানিস্বামী ও উপমুখ্যমন্ত্রী পনিরসেলভাম। তাই মনে করে হয়েছিল হয়তো ভাগ্নে দিনাকরণের দলকেই সমর্থন দেবেন শশীকলা। কিন্তু আপাতত সময় কম বলেই হয়তো সেই পথে গেলেন না তিনি।

অন্যদিকে বিরোধী শিবিরেও নানা বিষয় নিয়ে অসন্তোষ। কংগ্রেস চেয়েছে ৪০ আসন, ডিএমকে দিতে চেয়েছিল ১৮। অনেক দর কষাকষির পর ডিএমকে খুব বেশি হলে ২৪ আসন বলে জানিয়েছে। কিন্তু ডিএমকে-র সূত্রে জানা যাচ্ছে যে কংগ্রেস ৩৫-৪০ এর নিচে নামতেই চাইছে না। কংগ্রেসকে খুব বেশি আসন দিতে চায় না ডিএমকে কারণ তাদের ভয় হল যে নির্বাচন জিতলেও পরে না কংগ্রেসের বিধায়কদের ভাঙিয়ে সরকার গড়ে ফেলে বিজেপি। সেই কারণে ডিএমকে কম করে ১৭০-১৮০ আসনে লড়তে চায় যাতে নিজের থেকেই সংখ্যাগরিষ্ঠতা অর্জন করে দল। এআইডিএমকে নয় বিজেপির থেকেই মূল আশংকা বলে দলের সূত্রের খবর।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here