লাগাতার বৃষ্টির জেরে জাতীয় সড়কে ধস, বিচ্ছিন্ন বাংলা-সিকিম যোগাযোগ

0

লাগাতার বৃষ্টির জেরে ধস নামলো শিলিগুড়ি থেকে সিকিমগামী জাতীয় সড়কে। সেবক ব্রিজের কাছেই নামা এই ধসের জেরে বৃহস্পতিবার সকাল থেকেই সড়কপথে বাংলার সঙ্গে সিকিমের যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে গিয়েছে।

Read More-সকল শরণার্থী আফগানকেই আশ্রয় দেওয়া হবে ভারতে, ক্যাবিনেট বৈঠকে জানালেন মোদী

তবে এই ধসের জেরে প্রাণহানীর কোনও ঘটনা ঘটেনি। কার্যত সকাল থেকেই যুদ্ধকালীন তত্‍পরতায় চলছে ধস মেরামতির কাজ চলতে থাকে। এর জেরে বিকালের দিকে কিছুটা হলেও ওই রাস্তা দিয়ে হালকা গাড়ি চালানো শুরু হয়েছে বলে জানা গিয়েছে।

Read More-৬০ সেকেন্ডেরও কম সময়ে কীভাবে ইউটিউব ভিডিও ডাউনলোড করবেন? জেনে নিন

লাগাতার বৃষ্টির জেরে জাতীয় সড়কে ধস, বিচ্ছিন্ন বাংলা-সিকিম যোগাযোগ

Read More-৩১ অগস্ট অবধি আফগানিস্তানে মার্কিন সেনাবাহিনী মোতায়েন থাকবে, ঘোষণা বাইডেনের

১০ নম্বর জাতীয় সড়কে সেবক রেল ক্রশিং গেট থেকে সেবক ব্রিজ পর্যন্ত এলাকা বরাবরই ধস প্রবণ। গত কয়েকদিনের বৃষ্টিতে সেখানকার মাটি আরও আলগা হয়েছে। আর তার জেরেই বৃহস্পতিবার ভোররাতে সেবক ব্রিজের কাছেই ধস নামার ঘটনা ঘটে। সৌভাগ্যবশ্বত তখন রাস্তায় গাড়ি না থাকায় বড় ধরনের দুর্ঘটনা ঘটেনি। তবে ওই রাস্তা দিয়ে উভয়মুখেই যান চলাচল বন্ধ হয়ে পড়ে।

Read More-কোভিড পরিস্থিতিতে ছাত্র-ছাত্রীদের পড়ানোর নয়া মডেল তৈরি করে রাষ্ট্রপতি পুরস্কার পাচ্ছেন মালদার শিক্ষক

Read More-নিম্নচাপের জের, রাজ্যের একাধিক জেলায় বজ্রবিদ্যুত্‍ সহ বৃষ্টি, ভাসবে উত্তরবঙ্গ

দিনকয়েক আগেও পাহাড়ে ২৯ মাইলের কাছে এই ১০ নম্বর জাতীয় সড়কেই ধস নেমেছিল। তার ফলে সেই সময়ও বিচ্ছিন্ন হয়ে যায় দার্জিলিং ও সিকিমের যোগাযোগ। তারও আগে সেবক-রংপো রেল প্রকল্পের কাজ চলাকালীন মামখোলায় আচমকাই নামে ধস। ৫ জন শ্রমিক নিখোঁজ হয়ে যান। মৃত্যুও হয় এক শ্রমিকের। সেই ঘটনার রেশ কাটতে না কাটতেই ফের ধস। তবে এবারের ঘটনায় প্রাণহানীর যে কোনও ঘটনা ঘটেনি এটাই সব থেকে বড় কথা। তবে অনেকেই বার বার বলছেন পাহাড়ে জঙ্গল কেটে বাড়ি আর চাষের জমি বানানোর কাজ যতক্ষন না বন্ধ হয় ততক্ষন এই ধস ঠেকানোর কোনও উপায় নেই।

Read More-ভোজ্য তেলের ক্ষেত্রে আত্মনির্ভরতার লক্ষ্যে ‘মিশন পাম তেল’-এ অনুমোদন দিল কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভা

Read More-‘মাদার ডেয়ারি’ সংস্থার নাম বদলে ‘বাংলা ডেয়ারি’, ঘোষণা করলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here