৩০ জানুয়ারি থেকে কৃষক আন্দোলনের সমর্থনে ও কৃষিবিল প্রত্যাহারের দাবিতে অনশনে বসছেন আন্না হাজারে

0

ফের অনশন শুরু করতে চলছেন সমাজকর্মী আন্না হাজারে। বৃহস্পতিবার তিনি জানিয়েছেন, কৃষক আন্দোলনের সমর্থনে ও কৃষিবিল প্রত্যাহারের দাবিতে, মহারাষ্ট্রের আহমেদনগরে, অর্থাত নিজের শহরেই তিনি এই অনশন শুরু করবেন আগামীকাল, শনিবার, ৩০ জানুয়ারি থেকে। তিনি তাঁর সমর্থকদের উদ্দেশেও অনুরোধ করেছেন, সকলেই যেন তাঁর সঙ্গে প্রতিবাদে সামিল হন। ৮৪ বছরের সমাজকর্মী ও নেতা আন্না হাজারে বলেন, ‘গত চার বছর ধরে আমি কৃষকদের দাবিদাওয়া নিয়ে সরব। পরিস্থিতি দেখে মনে হচ্ছে, সরকার আদৌ খতিয়ে দেখছে না কৃষকদের সমস্যাগুলি। কৃষকদের প্রতি সরকার একটুও সংবেদনশীল নয়।’ দিন পনেরো আগেই প্রধানমন্ত্রীকে চিঠি দিয়ে আন্না জানিয়েছেন, নতুন কৃষি আইন কোনও গণতান্ত্রিক নিয়ম মেনে হয়নি। দেশে কোনও নতুন আইন তৈরিতে জনসাধারণের অংশগ্রহণ জরুরি বলেই মত প্রকাশ করেছেন আন্না। প্রধানমন্ত্রীর পাশাপাশি কৃষিমন্ত্রী নরেন্দ্র সিং তোমরকেও চিঠি দিয়েছেন তিনি। দুই চিঠিতেই আন্না হাজারে জানিয়ে দিয়েছেন, দেশের কৃষিজীবী এই মানুষদের দাবি যদি মেনে না নেওয়া হয়, নতুন কৃষিবিল যদি প্রয়োগ করা হয়, তাহলে আমরণ চলবে তাঁর অনশন। একই সঙ্গে কৃষিজাত দ্রব্যের দাম ও মূল্য বিষয়ক কমিশনের স্বাধিকারের দাবিও জানান তিনি। আন্না হাজারে বলেন, ‘আমি নিজে পাঁচ বার কেন্দ্রের সঙ্গে আলোচনায় বসতে চেয়েছিলাম। কৃষকদের দাবিদাওয়া নিয়ে আলোচনা করতে চেয়েছিলাম। কিন্তু সরকার কোনও উত্তরই দেয়নি। শেষমেশ এই বয়সে এসে তাই আবারও অনশনে বসার সিদ্ধান্ত নিলাম। এটাই আমার জীবনের শেষ অনশন।’ ২০১১ সালে প্রথম দুর্নীতি বিরোধী আন্দোলনের মুখ হয়ে ওঠেন আন্না হাজারে। দিল্লির রামলীলা ময়দানে চলে তাঁর অনশন আন্দোলন। সারা দেশে ছড়িয়ে পড়ে আন্দোলনের রেশ। সে সময়ে তাঁর সঙ্গে আলোচনা করতে সংসদে বিশেষ অধিবেশন ডাকে তত্‍কালীন ইউপিএ সরকার। কিন্তু অভিযোগ, বিজেপি সরকার আন্না হাজারের চিঠির উত্তরই দেয়নি। এমনকি রামলীলা ময়দান কর্তৃপক্ষের কাছে অনশনে বসার অনুমতি নিয়ে চিঠি লিখলেও এখনও কোনও উত্তর মেলেনি বলেই জানিয়েছেন আন্না। শেষমেশ দিল্লিতে নয়, নিজের শহরেই অনশনে বসছেন তিনি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here